Sadeka Halim সাদেকা হালিম এসএসসি পাশ করেছেন ঢাকার উদয়ন বিদ্যালয় থেকে, প্রথম বিভাগ পেয়ে। এইচএসসিতেও প্রথম বিভাগ পেয়েছেন, পড়েছিলেন হলিক্রস স্কুল অ্যান্ড কলেজে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের অধীনে স্নাতক সম্মান পরীক্ষায় প্রথম শ্রেণিতে দ্বিতীয় হয়েছেন। স্নাতকোত্তরে একই বিভাগ থেকে প্রথম শ্রেণিতে প্রথম।

এরপর কানাডার ম্যাকগিল ইউনিভার্সিটি থেকে কমনওয়েল স্কলারশিপসহ এমএ ও পিএইচ-ডি করেছেন। পোস্ট-ডক্টরেট করেছেন যুক্তরাজ্যের বাথ ইউনিভার্সিটি থেকে, কমনওয়েলথ স্টাফ ফেলোশিপসহ।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজ বিজ্ঞান বিভাগে অধ্যাপনা করছেন দুই যুগেরও বেশি সময় ধরে। মাঝে কয়েক বছর, ২০০৯ সাল থেকে ২০১৪ সালের জুন পর্যন্ত তথ্য কমিশনে তথ্য কমিশনার পদে ডেপুটেশনে কাজ করেছেন।

এছাড়া, পেশাগত জীবনে ড. সাদেকা হালিম অতিথি অধ্যাপক হিসেবে অস্ট্রিয়ার ভিয়েনার বকু বিশ্ববিদ্যালয়ে কাজ করেছেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উইমেন স্টাডিজ বিভাগ ও আয়ারর‌্যান্ডের বেলফাস্টের কুইন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের হায়ার এজুকেশন লিংক প্রোগ্রামের অধীনে কুইন্স-এর ভিজিটিং ফেলো ছিলেন কিছুদিন। জাতীয় ও আন্তর্জাতিক জার্নালে তার লেখা প্রায় ৫০ টি গবেষণা নিবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে।

অধ্যাপক সাদেকা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নির্বাচিত সিন্ডিকেট মেম্বার হিসেবে ছয় বছর দায়িত্ব পালন করেছেন। শিক্ষক সমিতির সদস্যও ছিলেন। উল্লেখযোগ্য সংখ্যক মানবাধিকার সংগঠনের উপদেষ্টা ও সদস্য হিসেবে জড়িত আছেন। ডিএফআইডি, ইউএনডিপি, অক্সফাম কানাডা, অক্সফাম জিবি, নোরাড, আইএফডি, এসডিসি, সেভ দ্য চিলড্রেন ইউ কে, সেভ দ্য চিলড্রেন সুইডেন-ডেনমার্ক, ইউএসএইড প্রভৃতি আন্তর্জাতিক সংস্থায় গবেষণা/পরামর্শকের কাজ করে একজন আন্তর্জাতিক গবেষক/পরামর্শক হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছেন।

এছাড়াও, বিশ্ব ব্যাংক, ইউএনডিপি এবং ফাও-এর জেন্ডার মেইনস্ট্রিমিং পলিসিতে বাংলাদেশের বিভিন্ন মন্ত্রণালয়-ভিত্তিক, বিশেষ করে পরিকল্পনা কমিশনের সাধারণ অর্থনীতি বিভাগের নিড অ্যাসেসমেন্ট অ্যান্ড কস্টিং অব এমডিজি-থ্রি তে কাজ করেছেন, যেটির কারিগরি সহায়তা প্রদান করেছে ইউএনডিপি।

ড. সাদেকা জাতীয় শিক্ষানীতি কমিটি, ২০০৯-এর ১৮ জন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদের অন্যতম সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন।

তার গবেষণার বিষয়– জেন্ডার-সমতা, বন ও ভূমি, উন্নয়ন, আদিবাসী ইস্যু, মানবাধিকার এবং তথ্য অধিকার।