সালাহ্উদ্দীন স্যারের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি

প্রকাশকাল |

অধ্যাপক সালাহ্উদ্দীন আহমদ স্যার ছিলেন উপমহাদেশের বয়োজ্যেষ্ঠ ঐতিহাসিক। আমাদের সমাজে ক্রমেই শ্রদ্ধা করার মতো মানুষ কমে যাচ্ছে। যারা ছিলেন কোনো না কোনো সময় শ্রদ্ধেয়, তাঁরা জীবনের শেষ পর্যায়ে এসে এমন কিছু করছেন যে শ্রদ্ধার ভিতটা নড়বড়ে হয়ে যাচ্ছে। বাংলা প্রবাদ তো শত শত বছরের জীবনচর্যার অভিজ্ঞতা।

  • Comment 3

সালাহ্উদ্দীন আহমদ: প্রজ্ঞা ও বুদ্ধিবৃত্তিক সততার শেষ প্রতিনিধি

প্রকাশকাল |

গত পরশু, ১৭ অক্টোবর, ২০১৪, একটু রাত করে বাসায় ফিরেছিলাম সবাই। দরজা খোলার পর স্ত্রীর চোখ মেঝেতে পড়তেই গ্রিক পুরানের সেই দুর্ঘটনা-আঁচকারী কাসান্দ্রার মতো ওর মুখটা মলিন ও আতঙ্কে আচ্ছন্ন হয়ে ওঠে। “কী হল তোমার?” “দেখতে পাচ্ছ না মেঝেতে কী পড়ে আছে!”

  • Comment 1

একজন সাদাসিধে মা

প্রকাশকাল |

আমার মা সেপ্টেম্বরের ২৭ তারিখ খুব ভোরবেলা মারা গেছেন। আমার বাবা যখন মারা গেছেন তখন তাঁর কাছে কোনো আপনজন ছিল না, একটা নদীর তীরে জেটিতে দাঁড় করিয়ে পাকিস্তানি মিলিটারিরা গুলি করে তাঁকে হত্যা করে তাঁর দেহটা নদীতে ফেলে দিয়েছিল। আমার মা যখন মারা যান তখন তাঁর সব আপনজন, ছেলেমেয়ে ভাইবোন নাতি-নাতনি সবাই তাঁর পাশে ছিল।… Read more »

  • Comment 12

মতিন ভাইকে শেষ স্যালিউট

প্রকাশকাল |

ঐতিহাসিক ভাষা আন্দোলনের প্রধান সংগঠক ও দ্বিজাতিত্ত্বের ঘোর বিরোধিতাকারী ছিলেন তিনি। ভারত-বিভাগোত্তর নবগঠিত সাম্প্রদায়িক রাষ্ট্র পাকিস্তানের বুকে ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্রের অকুতোভয় দাবিদারও তিনিই। সেই তিনি চলে গেলেন। আমাদের রাজনৈতিক সহকর্মী, অগ্রজতুল্য আবদুল মতিন ৮ অক্টোবর, ২০১৪ সকাল নয়টার দিকে পরলোকগমন করেছেন।

  • Comment 1