বছরের পর বছর ধরে আসকের মতো বিভিন্ন সংস্থা, নানা কিসিমের নজরদারি বা গবেষণা প্রতিষ্ঠানসহ গণমাধ্যমের দেওয়া এসব অপঘাত মৃত্যু তথা বকলমে ‘হত্যা’র খতিয়ান কি আলাদাভাবে কারও নজরে পড়ে, এখন— এই ডিজিটাল বাংলাদেশে? নজরে না পড়লে মনেই বা পুষবে কীভাবে?
  • Comment 2
যেখানে আদর্শিক অবস্থানে ভিন্নতা নেই সেখানে প্রতীক অভিন্ন হওয়াই তো দস্তুর। বিএনপি এ ক্ষেত্রে ধন্যবাদ পাওয়ার যোগ্য। তারা শুধু ‘রাজনৈতিক মিত্র’ পরিচয়ের কুয়াশা সরিয়ে ‘আদর্শিক বন্ধু’কে জাতির সামনে দাঁড় করিয়েছে। আর নির্বাচনের উত্তাপও অবশ্য এত জোরালো যে প্রাকৃতিক শীত এখন অন্তর্হিতই বলা যায়। আর শীত না থাকলে কুয়াশাই বা থাকবে কীভাবে!
  • Comment 0
রাজনীতির-রাষ্ট্রের এত এত ‘প্রশ্নচিহ্ন-যুক্ত’ আয়োজনকে ‘প্রশ্নচিহ্ন-মুক্ত’ করার মওকা তরুণরা হাতছাড়া করবেন, প্রতীতি হয় না। তাদের দৃষ্টি যখন যেখানেই থাক— কী মুঠোফোনের পর্দায়, কী আত্মকেন্দ্রিকতায়, যতই বিভ্রান্তির আলেয়া ছড়ানো হোক, সময়ে  ঠিক জায়গাতেই দৃষ্টি স্থির করেন তারা; আলো জ্বালেন ঠিক আঁধার ঘনালে।
  • Comment 1
বাংলাদেশের সমাজে প্রতীক দেখে ভোট দেওয়ার সংস্কৃতি বেশ জাঁকালো। প্রার্থীর ব্যক্তিগত যোগ্যতা, মতাদর্শগত অবস্থান বা অতীত কর্মকাণ্ড খতিয়ে দেখা হয় না। যোগ্য বা ভালো প্রার্থীর প্রধান মানদণ্ডই তিনি কোন দল বা জোটের লোক!
  • Comment 4